image

আজ, বুধবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২০ ,


গ্রেডিং পদ্ধতি সংস্কার: সর্বস্তরে চালু হচ্ছে জিপিএ-৪

গ্রেডিং পদ্ধতি সংস্কার: সর্বস্তরে চালু হচ্ছে জিপিএ-৪

ফাইল ছবি।

পাবলিক পরীক্ষায় গ্রেডিং পদ্ধতি সংস্কার করা হচ্ছে। পুরোনো পদ্ধতি জিপিএ-৫ এর পরিবর্তে নির্ধারণ করা হয়েছে জিপিএ-৪। এতে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে জেএসসি পর্যন্ত একই গ্রেডিং পদ্ধতি বাস্তবায়ন করা হবে।

রোববার (৮ সেপ্টেম্বর) শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অধীনে গ্রেড পরিবর্তন সংক্রান্ত আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে আয়োজিত সভায় এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি।

পাবলিক পরীক্ষায় গ্রেড পরিবর্তন কমিটির সদস্য ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক অধ্যাপক শাহাদাত হোসেন নতুন গ্রেড পদ্ধতি উপস্থাপন করেন। এরপর সকলের সম্মতিতে খসড়া প্রস্তাবনা চূড়ান্ত করা হয়। তবে এ সংক্রান্ত আরও দুই-একটি সভা করা হবে বলে সভায় উপস্থিত image একাধিক কর্মকর্তা নিশ্চিত করেন।

গ্রেড পরিবর্তন প্রস্তাবনায় দেখা গেছে, জেএসসি-জেডিসি, এসএসসি-সমমান, এইচএসসি-সমমান পরীক্ষায় নম্বরের ভিত্তিতে সর্বোচ্চ জিপিএ-৪ করা হবে। এ ক্ষেত্রে ৯০-১০০ পর্যন্ত এ প্লাস জিপিএ-৪, ৮০-৮৯ পর্যন্ত ‘এ’ জিপিএ-৩.৫, ৭০-৭৯ ‘বি’ প্লাস জিপিএ-৩, ৬০-৬৯ ‘বি’ জিপিএ-২.৫, ৫০-৫৯ ‘সি’ প্লাস জিপিএ-২, ৪০-৪৯ ‘সি’ জিপিএ-১.৫, ৩৩-৩৯ ‘ডি’ জিপিএ-১ এবং শূন্য থেকে ৩২ ‘এফ’ গ্রেড জিপিএ-০ বা ফেল নির্ধারণ করা হয়েছে।

সভা শেষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক অধ্যাপক শাহাদাত হোসেন বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্রেডিং পদ্ধতির সঙ্গে সমন্বয় রেখে নতুন জিপিএ পদ্ধতি বাস্তবায়ন করা হবে। এটি বহির্বিশ্বের সঙ্গেও সমন্বয় থাকছে।

তিনি বলেন, সভায় নতুন গ্রেড সংক্রান্ত খসড়া প্রস্তাবনা প্রকাশের পর এ নিয়ে উপস্থিত সকলের মতামত চাওয়া হলে সকলে তাতে একমত প্রকাশ করেন। পুরোনো পদ্ধতি জিপিএ-৫ বদলে চলতি বছর জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি-জেডিসি) পরীক্ষা থেকে জিপিএ-৪ পদ্ধতি বাস্তবায়নের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। সে সিদ্ধান্তের প্রেক্ষিতে চলতি বছর নভেম্বরে আয়োজিত জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষা থেকে নতুন পদ্ধতি কার্যকর হবে। বিশ্ববিদ্যালয়ের সিজিপিএ-৪ এর সঙ্গে সমন্বয় করে নিচের স্তরের সকল পাবলিক পরীক্ষার ফলাফলে জিপিএ-৪ করা হচ্ছে।

সভায় শিক্ষামন্ত্রী বলেন, যেহেতু এটি একটি বড় কর্মযজ্ঞ, তাই এটি চূড়ান্ত করার আগে আরও দুই-একটি সভা করা প্রয়োজন। বিশ্বের সঙ্গে সমন্বয় রেখে গ্রেড পদ্ধতি পরিবর্তন করা হচ্ছে। কোনো পরিবর্তনের ফলে কেউ যাতে ক্ষতিগ্রস্ত না হয় সে বিষয়টি মাথায় রাখতে হবে। উন্নত বিশ্বের অনেক দেশে একই গ্রেডিং পদ্ধতি অনুসরণ করা হচ্ছে, সে বিষয়টি সঙ্গে তাল মিলিয়ে আমাদের শিক্ষার্থীদের সুবিধার্থে গ্রেড পরিবর্তন করা জরুরি হয়ে পড়েছে।

তিনি বলেন, অনেক দেশে আমাদের গ্রেডিং পদ্ধতির সঙ্গে সমন্বয় না থাকায় শিক্ষার্থীরা নানা সমস্যায় পড়ে। নতুন পদ্ধতি বাস্তবায়ন হলে সে সমস্যার নিরসন হবে।

সভায় উপস্থিত ছিলেন শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সিনিয়র সচিব মো. সোহরাব হোসেন, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক মো. সৈয়দ গোলাম ফারুক, শিক্ষাবিদ, মাদরাসা অধিদফতরের মহাপরিচালক সফিউদ্দিন আহমেদ, ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক. মু. জিয়াউল হক, মাদরাসা শিক্ষা বোর্ডর চেয়ারম্যান অধ্যাপক কায়সার আহমেদ, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা প্রমুখ।

-সিভয়েস/এসএ

আরও পড়ুন

চট্টগ্রামে ‘স্টুডেন্ট কেবিনেট’ নির্বাচনের ভোট গ্রহণ চলছে

সারােদেশের মত চট্টগ্রামে আজ মাধ্যমিক পর্যায়ে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বিস্তারিত

২০২১ সাল থেকে সব পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা

২০২১ সাল থেকেই সারাদেশের সব পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা বিস্তারিত

প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণপদকের জন্য মনোনীত চবির ৮ শিক্ষার্থী 

নিজ নিজ অনুষদে কৃতিত্বপূর্ণ ফলাফলের জন্য ২০১৮ সালের প্রধানমন্ত্রী বিস্তারিত

সাদার্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্মেলন শুক্রবার

সাদার্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের পুরাকৌশল বিভাগ দ্বিতীয়বারের মতো আয়োজন করছে বিস্তারিত

জব ফেয়ারে চীনে চাকরির সুযোগ

বাংলাদেশী শিক্ষিত বেকার যুবকদের চীনে চাকরির সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে। এ লক্ষ্যে বিস্তারিত

রহমানিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে বই উৎসব

নতুন বছরের প্রথম দিন সারাদেশের ন্যায় রহমানিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের বিস্তারিত

৩৩ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সবাই ফেল!

জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) ও জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) বিস্তারিত

ঘরে বসে চার শিক্ষা সমাপনীর ফলাফল

সারা দেশে একযোগে সকাল ১০টায় পিইসি ও ইবতেদায়ী এবং বেলা ১২টায় জেএসসি ও জেডিসি বিস্তারিত

বিকেলে জাতীয় বিশ্ববিদ্যায়ের ডিগ্রি পরীক্ষার ফল প্রকাশিত হবে

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় এর ডিগ্রি পাস ও সার্টিফিকেট কোর্সের ২য় বর্ষের ফলাফল বিস্তারিত

সর্বশেষ

হ্যালো ওসি! ফুটপাত নাকি ফলমন্ডি?

ফুটপাত দখলমুক্ত রাখতে মেয়র নাছিরের জিরো টলারেন্স ঘোষণা দেয়ার পরও হাঁটার বিস্তারিত

সিভয়েসে সংবাদ প্রকাশের পর বিআরটিসি’র অ্যাকশন শুরু

শিক্ষার্থী সার্ভিস বাসে কোনো ধরনের সাধারণ যাত্রী উঠানো যাবে না, পূর্ব হতে বিস্তারিত

লামায় বন্য হাতির আক্রমণে বৃদ্ধ মহিলার মৃত্যু

বান্দরবানের লামা উপজেলায় বন্য হাতির আক্রমণে এক বৃদ্ধ মহিলার মৃত্যু হয়েছে। বিস্তারিত

যৌবনের শ্রেষ্ঠ সময়ে সফলতার সিঁড়িতে মিজান

শহিদুল মোস্তফা চৌধুরী মিজান। যৌবনের শ্রেষ্ঠ সময়ে যিনি তৈরি করেছেন তাঁর বিস্তারিত

সর্বস্বত্ত্ব সংরক্ষিত, এই ওয়েব সাইটের যেকোন লিখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ন বেআইনি