image

আজ, রবিবার, ২৫ আগস্ট ২০১৯ ,


সোনাদিয়া দ্বীপে সবুজায়ন কর্মসূচি  শুরু

সোনাদিয়া দ্বীপে সবুজায়ন কর্মসূচি  শুরু

ছবি : প্রতিনিধি

কক্সবাজারের মহেশখালীর উপদ্বীপ সোনাদিয়া ইকো-ট্যুরিজম পার্ককে একটি আন্তর্জাতিক মানের পর্যটন গন্তব্যে পরিণত করার লক্ষ্য হিসেবে বৃক্ষ রোপন কর্মসূচীর উদ্বোধন করা হয়। মঙ্গলবার বিকালে বাংলাদেশ অর্থ নীতি কর্তৃপক্ষ বেজার আয়োজনে   সিটি ব্যাংকের সহযোগিতায়  বৃক্ষরোপন কর্মসুচি উদ্ধোধন করেন প্রধানমন্ত্রীর আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিষয়ক উপদেষ্টা . গওহর রিজভী

এসময় উপস্থিত ছিলেন প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের  মূখ্য সমন্বয়ক মো. আবুল কালাম আজাদ, বাংলাদেশে জাপানের রাষ্ট্রদূত হিরুয়াসু ইজুমি, বেজার চেয়ারম্যান প্রবণ চৌধুরী, বেজার নির্বাহী সদস্য মো. আয়ুব, সাংসদ আশেক উল্লাহ রফিক, জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি সিরাজুল মোস্তাফা, উপজেলা চেয়ারম্যান শরিফ বাদশামহেশখালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার জামিরুল ইসলাম, সহকারী কমিশনার অংগ্যাজাই মারমা, ওসি প্রভাষ চন্দ্র ধরপৌর মেয়র মকছুদ মিয়া, কুতুবজোম ইউপি চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন খোকন, উপজেলা শ্রমিকলীগের সহ সভাপতি জাহাঙ্গির আলম,

সুত্রে জানায়, প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষের গভর্নিং বোর্ডের ৬ষ্ঠ বৈঠকে পরিবেশের দিকে লক্ষ্য রেখে শিল্পাঞ্চল প্রতিষ্ঠার নির্দেশনা দেন। তিনি শিল্পাঞ্চলে জলধারের পাশাপাশি বৃক্ষরোপন করার বিষয়ে জোর দেন। বিশেষ করে উপকূলীয় এলাকার শিল্পাঞ্চলে ঝাউগাছ লাগানো এবং কৃত্রিম ম্যানগ্রোভ বন তৈরির প্রতি গুরুত্ব আরোপ করেন। তাঁর নির্দেশনা বাস্তবায়নের লক্ষ্যে আগামী ২০২১ সালের মধ্যে সকল অর্থনৈতি অঞ্চল সমুহে ১৫ লাখ এবং ২০২৫ সালের মধ্যে ৩০ লাখ গাছ রোপনের পরিকল্পনা রয়েছে বেজার।

সোনাদিয়া ইকো- ট্যুরিজম পার্ক মহেশখালী উপজেলার সোনাদিয়া, বিজয় একাত্তর সমুদ্র বিলাস মৌজায় অবস্থিত। এতে মোট জমির পরিমাণ ৯ হাজার ৪৬৭ একর। পার্কটিকে একটি পুর্ণাঙ্গ নয়ানাভিরাম পর্যটন গন্তব্যে পরিণত করার লক্ষ্যে বেজা কাজ করে চলেছে। সোনাদিয়ার প্রাকৃতিক সৌন্দর্যকে অক্ষুন্ন রেখে সংরক্ষিত বনকে আরও প্রসারিত করে শুধুমাত্র ৩০০ একর জায়গা জুড়ে ইকোট্যুরিজম পার্কটিকে গড়ে তোলা হবে।

এখানে অবস্থিত সুদৃশ্য ঝাউ বনকে আরো আকর্ষণীয় করে তুলতে বেজা সেখানে ব্যাপক বনায়নের পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। এছাড়াও বেজার অন্যান্য পরিকল্পনায় রয়েছে।

সোনাদিয়ায় ইকো-ট্যুরিজম পার্ক প্রতিষ্ঠা করতে বেজা ইতোমধ্যে মাষ্টার প্ল্যান প্রণয়নের লক্ষে পরামর্শক প্রতিষ্ঠান মাহিন্দ্রা কনসালটেন্ট ভারতকে নিয়োগ দিয়েছে। পার্কটিকে পরিবেশ বান্ধব হিসেবে গড়ে তুলতে বেজা প্রাথমিকভাবে শুধুমাত্র ৩০% স্থান ব্যবহারের পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। এখানকার জীববৈচিত্র্য রক্ষা উন্নয়নে বেজা কাজ করছে এবং সকল পরিবেশের উপাদান প্রাকৃতিক সৌন্দর্য্যকে পর্যটকদের নিকট তুলে ধরার ব্যবস্থা গ্রহণ করছে। দ্বীপে বসবাসরত ৩১৫টি পরিবারের পুনর্বাসনের একটি পরিকল্পনা প্রস্তুত করা হয়েছে যা প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক অনুমোদিত হয়েছে। সোনাদিয়া দ্বীপে নতুন করে যাতে কোন মৎস্য ঘের অবৈধভাবে বসতি গড়ে না উঠে সে বিষয়টি নিশ্চিতকল্পে জেলা প্রশাসন, কক্সবাজার প্রয়োজনীয় কাজ করছে। দ্বীপ রক্ষাকল্পে বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ড প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণে কাজ করছে। দ্বীপের নিরাপত্তা নিশ্চিতকল্পে বাংলাদেশ কোষ্টগার্ড একটি পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে এবং তাদের স্থাপনার জন্য জমি বরাদ্ধের সিদ্ধান্ত নেয়া হেয়েছে। সোনাদিয়া দ্বীপের জীব বৈচিত্র্য বজায় রেখে পরিবেশ-বান্ধব ট্যুরিজম পার্ক গড়ে তুলতে পরিবেশ বন মন্ত্রণালয়ের সাথে সমন্বয় করা হচ্ছে। দ্বীপের উপকূলীয় অংশে ঝাউবন সৃজনের কাজ চলমান। সুপের পানির নিশ্চিতকল্পে জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর কর্তৃক ব্যবস্থা গ্রহণ। অবৈধ দখল বন্ধে পুলিশ ক্যাম্প সশন্ত্র আনসার নিয়োগের উদ্যোগ গ্রহণ।

এ ব্যাপারে বেজার নির্বাহী চেয়ারম্যান  পবন চৌধুরী বলেন, সোনদিয়া ইকো-ট্যুরিজম পার্ক হবে প্রকৃতি প্রেমীদের জন্য এক স্বর্গ রাজ্য যেখানে থাকবে সবুজের সমারহ, কাকড়া কচ্ছপের জন্য পৃথক জোন যেখানে জনসাধারণের প্রবেশের কোন সুযোগা থাকবে না এবং জীব বৈচিত্র সংরক্ষনসহ আরো সমৃদ্ধ করণে উদ্যোগ গ্রহণ করা হবে।

প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের  মো. আবুল কালাম আজাদ বলেন, টেকসই উন্নয়নের মূল শর্ত অনুযায়ী বৃক্ষরোপনের ফলে জীব বৈচিত্র্য রক্ষার পাশাপাশি ভূমি রক্ষা হবে।

তিনি বলেন আরো বলেন, সরকার দ্বীপভিত্তিক উন্নয়ন ত্বরান্বিত করার লক্ষ্যে বিভিন্ন পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। তাই দ্বীপের জীব বৈচিত্র্য এবং পারিপার্শ্বিক অবস্থঅ অপরিবর্তিতরেখে দ্বীপবাসীদের জীবন জীবিকা সংস্থান করার জন্য ভবিষ্যতে বৃহৎ পরিকল্পনা রয়েছে। সোনাদিয়া ইকো ট্যুরিজম পার্ক তারই প্রতিফলন।

 অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে জেলা প্রশাসক পুলিশ সুপার কক্সবাজার, বন বিভাগের বিভাগীয় প্রধান, পানি উন্নয়ন বোর্ডের প্রধান প্রকৌশলী, সড়ক জনপথ, ফায়ার সার্ভিস সিভিল ডিফেন্স, পরিবেশ অধিদপ্তর, জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর, জেলা প্রশাসনের প্রতিনিধিসহ সরকারের বিভিন্ন বিভাগের প্রতিনিধিগণসহ সিটি ব্যাংকে প্রতিনিধিগণ উপস্থিত ছিলেন।

-সিভয়েস/এসএ

আরও পড়ুন

রোহিঙ্গা সংকটের দুই বছর, ৫ দফা দাবিতে মহাসমাবেশ

রোহিঙ্গা সংকটের দুই বছর পূর্ণ হয়েছে আজ। উপলক্ষে ৫ দফা দাবিতে মহাসমাবেশ বিস্তারিত

উখিয়ায় যুবকের গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার

কক্সবাজারের উখিয়ার রূপপতি ব্রিজের পাশে এক যুবকের গুলিবিদ্ধ মরদেহ পাওয়া বিস্তারিত

পেকুয়ায় ভুয়া এনএসআই কর্মকর্তা আটক 

কক্সবাজারের পেকুয়ায় জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা সংস্থার (এনএসআই) জুনিয়র বিস্তারিত

টেকনাফে ‌‌‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবলীগ নেতা হত্যার সন্দেহভাজন ২ রোহিঙ্গা নিহত

কক্সবাজারের টেকনাফে  যুবলীগ নেতা ওমর ফারুক হত্যায় অভিযুক্ত দুই রোহিঙ্গা বিস্তারিত

কুতুবদিয়ায় নতুন ইউএনও জিয়াউল হক মীর

কুতুবদিয়া উপজেলা নিবার্হী অফিসার (ইউএনও) পদে যোগদান করেছেন মো. জিয়াউল হক বিস্তারিত

পেকুয়ায় জন্মাষ্টমী উপলক্ষে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা

কক্সবাজারের পেকুয়ায় জন্মাষ্টমী উপলক্ষে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা অনুষ্ঠিত বিস্তারিত

রোহিঙ্গা ইস্যুতে মিয়ানমারের পাশেই থাকছে চীন

রোহিঙ্গা সংকট নিরসনে মিয়ানমারের পাশে থাকার অঙ্গীকার পুনর্ব্যক্ত করেছে বিস্তারিত

রোহিঙ্গা প্লাবনের দুই বছরের খতিয়ান

দুই বছর আগে এই আগস্ট মাসেই সেনাবাহিনীর হত্যা-ধর্ষণ-নির্যাতনের মুখে বিস্তারিত

টেকনাফে রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীদের গুলিতে যুবলীগ নেতা নিহত

টেকনাফে বাড়ি থেকে ধরে নিয়ে ওমর ফারুক (৩০) নামের এক যুবলীগ নেতাকে হত্যা করেছে বিস্তারিত

সর্বশেষ

মাঝ রাস্তায় ওয়াসার পাইপ লিকেজ; পথচারীদের দুর্ভোগ

মুষলধারে ছড়াচ্ছে পানি। যেন রাস্তার মাঝে হঠাৎ সৃষ্ট কোনো প্রাকৃতিক বিস্তারিত

বান্দরবানে বাস-মোটরবাইক সংঘর্ষে পুলিশ সদস্য নিহত

বান্দরবানে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেনে এক পুলিশ সদস্য। শনিবার রাত বিস্তারিত

সাংকেতিক শব্দ ব্যবহার করে চুরি করে ওরা, টার্গেট দোকান-অফিস

চট্টগ্রামে সংঘবদ্ধ চোর চক্রের মূল হোতাসহ ১১ জন চোরকে গ্রেফতার করেছে বিস্তারিত

নিকাহ রেজিস্ট্রি ফরমে ‘কুমারী’ শব্দ বাদ দেয়ার নির্দেশ

নিকাহ রেজিস্ট্রি ফরমে ‘কুমারী’ শব্দ মুছে দিতে নির্দেশ দিয়েছেন বিস্তারিত

সর্বস্বত্ত্ব সংরক্ষিত, এই ওয়েব সাইটের যেকোন লিখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ন বেআইনি

close