image

আজ, শুক্রবার, ২৩ আগস্ট ২০১৯ ,


কেন ভাঙছে না ‘কর্ণফুলী কোল্ড স্টোরেজ’

কেন ভাঙছে না ‘কর্ণফুলী কোল্ড স্টোরেজ’

কর্ণফুলী কোল্ড স্টোরেজ।

কর্ণফুলী নদীর তীরে প্রথম ধাপের উচ্ছেদ অভিযান চালানো ইতোমধ্যে শেষ হয়েছে। শুক্রবার (৮ ফেব্রুয়ারি) টানা পাঁচদিন অভিযানের সফল পরিসমাপ্তি ঘটান জেলা প্রশাসন। প্রথম ধাপের অভিযানে ছোট বড় সব রকমের গুদাম ভাঙা পড়েছে। তবে সদরঘাট এলাকায় ‘কর্ণফুলী কোল্ড স্টোরেজ’ নামে একটি তিনতলা ভবন ভাঙবে কি ভাঙবে না তা নিয়ে সবার মনে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে- কেন ভাঙছে না এ ভবন! এটা কি আদৌ ভাঙা হবে না ?

শনিবার (৯ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১০টার দিকে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, সব ছোট বড় স্থাপনা ভেঙে দিলেও  তিনতলা ভবনটি দিব্যি দাড়িয়ে রয়েছে। image প্রথম ধাপের অভিযানেও কিছু করতে পারেনি নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটরা। কারণ জনমূখে শোনা যাচ্ছে ভবনটি সরকার থেকে ইজারা নেয়া।

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, কর্ণফুলী কোল্ড স্টোরেজের জায়গাটি ইজারা নেয়া। এখন উচ্ছেদ অভিযান চললেও তাদের ভবনটিকে ভাঙতে পারছেন না প্রশাসন। কারণ তারা হাইকোর্ট থেকে একটি স্থগিতাদেশ নিয়ে আসেন। যে কারণে ম্যাজিস্ট্রেটরা পরবর্তী নির্দেশের অপেক্ষায় রয়েছেন।

স্থানীয় ব্যবসায়ী মামুন হোসেন বলেন, সবাই মালামাল সরিয়ে নিলেও এ কোল্ড স্টোরেজের কোন মালামাল সরিয়েও নিচ্ছে না। তারা এটাকে ভাঙার মধ্যে পড়ুক সেটা চাচ্ছে না। যদি চাইতো তাহলে তারা কোটি কোটি টাকার মালামাল সরিয়ে নিতো।
তারেক নামে আরেক স্থানীয় বলেন, আইন সবার জন্য সমান। সরকার চাইলে এ জায়গাটি দখলে নিয়ে নিতে পারে। যদি তারা সরকার থেকে ইজারা নেয়, তাহলে সরকার ইজারার টাকা ফিরিয়ে দিবে। এতে হাইকোর্ট দেখানোর কি আছে। হাইকোর্টও চাইলে স্থগিতাদেশ ফিরিয়ে নিতে পারে। সরকারি জায়গা সরকারকে বুঝিয়ে দিতে হবে।

অভিযানে নেতৃত্ব দেয়া চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও পতেঙ্গার সহকারী কমিশনার (ভূমি)  তাহমিলুর রহমানের সাথে কথা হলে তিনি বলেন, অবৈধ কোন ভবন থাকবে না। আগামী সোমবার এ নিয়ে একটা শুনানি আছে তার পরবর্তী নির্দেশনা অনুযায়ী কাজ করবো।

এ বিষয়ে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক মো. ইলিয়াস হোসেন সিভয়েসকে বলেন, কোল্ড স্টোরেজটা আমাদের রেকর্ডের মধ্যে পড়েনি। যতটুকু পড়েছে ততটুকু ভাঙা হয়েছে তারমধ্যে আর অল্প একটু আছে সেজন্য তারা হাইকোর্টের স্ট্রে অর্ডার দেখিয়েছে। ওটা নিষ্পত্তি হয়ে গেলেই আমরা পরবর্তী পদক্ষেপ নিতে পারবো। আবার উনারা এটা সরকার থেকে দীর্ঘমেয়াদী ইজারা নেয়াতে ওইদিকেও সুবিধা পেয়েছেন।

জেলা প্রশাসক আরও বলেন, এ ভবনটি বন্দোবস্ত বাতিল করার সুযোগ থাকলে সেটা আমরা করবো। তবে এ কোল্ড স্টোরেজে অনেক মালামাল রয়েছে এবং আইনগত জটিলতা থাকায় পুরোটা ভাঙতে পারিনি। আর আমাদের মধ্যে যতটুকু পড়ছে তার বেশিরভাগ অংশ ভেঙে ফেলেছি। 

এ নিয়ে শনিবার (৯ ফেব্রুয়ারি) বিকেল ৪টায় উচ্ছেদের পর পুরো এলাকা পরিদর্শন করেছেন ভূমি মন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ। 

তিনি সাংবাদিকদের বলেন, অবৈধ কোন কিছুই থাকবে না। যতটুকু জেনেছি মাছের আড়তে হাজার হাজার মাছ স্টকে আছে। তাদের সময় দেয়া হবে। আমি কাজ করছি দেশ এবং জনগণের কল্যাণের জন্য। কোন অবৈধ স্থাপনা থাকতে দেয়া হবে না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চাইছেন উন্নত সমৃদ্ধ বাংলাদেশ। আমরা সে লক্ষে কাজ করে যাচ্ছি।

মন্ত্রী আরও বলেন, কর্ণফুলী বাঁচলে, চট্টগ্রাম বাঁচবে। কর্ণফুলী নদী অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এ নদী আমাদের রক্ষণাবেক্ষণ করতে হবে। এছাড়া আমরা চেষ্টা করবো দৃষ্টিনন্দন কিছু করতে। কারণ কর্ণফুলী নদী দেখতে অনেকে আসে। নোংরা পরিবেশে দেখা আর সুন্দর পরিবেশে দেখার মধ্যে পার্থক্য আছে।

উল্লেখ্য, গত ৪ ফেব্রুয়ারি (সোমবার) থেকে নগরীর সদরঘাট থেকে উচ্ছেদ অভিযান শুরু হয়। এ অভিযানে ২৩০টি স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়। এর মধ্যে পাঁচটি খালও উদ্ধার করা হয়েছে। ছয় দিনের উচ্ছেদ অভিযানে বেদখলে থাকা প্রায় ১০ একর ভূমি উদ্ধার করেন প্রশাসন। আজকে এ অভিযানের প্রথম পর্যায় শেষে পরিদর্শনও করেন ভূমি মন্ত্রী।

সিভয়েস/এসএ

আরও পড়ুন

তেল-চিনি ও পেঁয়াজের বাজারে উত্তাপ!

বাজেটে রাজস্ব বৃদ্ধি, আমদানি কমে যাওয়াসহ বিভিন্ন অজুহাতে বিস্তারিত

কাল রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরু

পূর্ব-নির্ধারিত সময় অনুযায়ী আগামীকাল বৃহস্পতিবার (২২ আগস্ট) থেকে শুরু বিস্তারিত

নগরের আইন শৃংখলা পরিস্থিতি অতীতের তুলনায় এখন অনেক ভালো- সিএমপি কমিশনার

নগরের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি অতীতের যেকোনো সময়ের তুলনায় অনেক বেশি ভালো। বিস্তারিত

মিরসরাইয়ে পাহাড়ি ঝর্ণায় ৪ বছরে নিহত ১০, আহত শতাধিক

চট্টগ্রামের মিরসরাইয়ে বিভিন্ন পাহাড়ি প্রাকৃতিক ঝর্ণা দেখতে গিয়ে বিস্তারিত

এক লাখ চামড়া রাস্তায়, ট্যানারি মালিকদের দুষছেন আড়তদাররা

কোরবানির ঈদে চট্টগ্রামে প্রায় এক লাখ পিস কাঁচা চামড়া নষ্ট হওয়ার পেছনে বিস্তারিত

পর্যটকের পদভারে মুখরিত কক্সবাজার

ঈদের ছুটিতে পর্যটকের পদভারে মুখরিত কক্সবাজার। ছুটির ৪র্থ দিনেও লাখো বিস্তারিত

চিড়িয়াখানা ও ফয়’স লেকে পর্যটকদের বাঁধভাঙা আনন্দ

ঈদ মানেই খুশি, ঈদ মানেই আনন্দ। সকাল থেকে বৃষ্টির বিড়ম্বনা থাকলেও থামাতে বিস্তারিত

মেয়র পদে প্রার্থী হতে চান শাহাদাত-বক্কর

আগামী চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে মেয়র পদে আওয়ামী লীগ-বিএনপির বিস্তারিত

ব্যাপক কদর বেড়েছে গাছের গুঁড়ির, বিক্রি জমজমাট

কোরবানি পশুর মাংস কাটার বিভিন্ন সরঞ্জামাদির পাশাপাশি কদর বেড়েছে গাছের বিস্তারিত

সর্বশেষ

রোহিঙ্গা প্লাবনের দুই বছরের খতিয়ান

দুই বছর আগে এই আগস্ট মাসেই সেনাবাহিনীর হত্যা-ধর্ষণ-নির্যাতনের মুখে বিস্তারিত

সাতক্ষীরায় ডেঙ্গু জ্বরে গৃহবধূর মৃত্যু

সাতক্ষীরায় ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। বিস্তারিত

টেকনাফে রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীদের গুলিতে যুবলীগ নেতা নিহত

টেকনাফে বাড়ি থেকে ধরে নিয়ে ওমর ফারুক (৩০) নামের এক যুবলীগ নেতাকে হত্যা করেছে বিস্তারিত

‘মানুষের শান্তি ফিরিয়ে আনতেই ভগবান শ্রীকৃষ্ণের আবির্ভাব’

বিএনপির জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী বলেছেন, ভগবান বিস্তারিত

সর্বস্বত্ত্ব সংরক্ষিত, এই ওয়েব সাইটের যেকোন লিখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ন বেআইনি

close